মঙ্গলবার   ১১ আগস্ট ২০২০   শ্রাবণ ২৬ ১৪২৭   ২১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

৯৮৯

কবিতা

শেখর দেব

প্রকাশিত: ২৭ এপ্রিল ২০১৯  

আষাঢ়িয়া

 

অলস সকাল ঘিরে দেবীর চোখের তারা জাগে

ঘোরের ঘুঙুর পায়ে নেচে উঠে মনের মিনার

আষাঢ়ি অমৃত কথা ঝরেছে আকুল হয়ে ধীরে।

পাহাড়ে জাদুর দেশ কেঁপে উঠে সহসা যখন

অজান্তা ইলোরা ঢঙে নাচে শুধু গুহাবাসী মন!

 

ছুঁলেই তোমাকে যদি ফুটে উঠে পাহাড়িয়া ফুল

নেমে আসে চঞ্চল ঝরনা ধারা দারুণ আবহে

ধবল পাখির চোখ পড়ে নেয় প্রেমের গণিত।

ঘাসের জমিন থেকে জাগে কোন উষ্ণ আয়োজন

তখন বৃষ্টির নামে ভিজে যায় পাহাড়িয়া খাঁজ

খুলে যায় অবারিত মায়া নিয়ে মৃত্তিকার ভাঁজ।

 

তিলোত্তমা ফুল হতে গন্ধ আসে গন্ধমের দেশে

বিষহরি অমৃত হরণ দোষে স্বেচ্ছা মনোবাসে

ঘুরে ঘুরে পথের সীমানা খোঁজে কিনারাবিহীন।

অযথা এমন হাল হলো তার কবিতার দেশে

হারায়ে শব্দের তেজ পড়ে থাকে পঙক্তির শেষে

অবিরত বাড়ে শুধু অজানা আনন্দ সীমাহীন।

 

ঠোঁটের এমন হাসি বিজলি লেগে যায় আকাশে

আষাঢ় হেসে হেসে শ্রাবণের গান গায় বাতাসে

বরষার রাগ নিয়ে গান বাঁধে পাখির পালক।

বিরান শহর ঘিরে দোল খায় বাসনা প্রবল

ঘুরে ফিরে নেমে আসে মরমিয়া পাহাড়িকা জল।